Sheikh Russel Online Quiz

Sheikh Russel Quiz 2022 – শেখ রাসেল কুইজ প্রশ্ন ও উত্তর দেখুন quiz.sheikhrussel.gov.bd

Many people want to attend on the Sheikh Russel Online Quiz 2022. That’s why we mention the full procedure to play the Sheikh Russel Online Quiz 2022. You should visit quiz.sheikhrussel.gov.bd to play the quiz game. We can help you to know how to participate quiz game. And how to register for the Sheikh Russel Online Quiz 2022.

An online (quiz.sheikhrussel.gov.bd) quiz competition for children and adolescents has been organized on the occasion of Sheikh Russel Day 2022.

Sheikh Russel Quiz 2022

The Department of Information and Communication Technology has launched a website (www.sheikhrussel.gov.bd) and an online quiz competition platform in the name of Sheikh Russel, the youngest son of Bangabandhu Sheikh Mujibur Rahman, on the occasion of his birthday and “Sheikh Russel Day 2022”.

quiz.sheikhrussel.gov bd

Junaid Ahmed Palak, Minister of State for Information and Communication Technology, inaugurated the website and online quiz competition at the BCC Auditorium at the ICT Tower in Agargaon, Dhaka, on Sunday (October 3rd). An online (quiz.sheikhrussel.gov.bd) quiz competition has been organized for children and teenagers on the occasion of Sheikh Russel Day 2022.

Sheikh Rasel Quiz Result

sheikh result

Sheikh Rasel Quiz Questions and Answers

Those who can participate:
Group A: 8-12 years
Group B: 13-18 years

Bkash Quiz Result Today 2022 ( Get Today Answer & Winner List 2022)

প্রিয় ডেইলি কুইজ | Priyo Daily Quiz [ প্রশ্ন ও উত্তর ]

Registration Procedure:
Registration can be done online (quiz.sheikhrussel.gov.bd) from 28 August to  27 September 2022, till 12 noon.

Register For Quiz

শেখ রাসেল কুইজ ক গ্রুপ খেলুন এখানে

শেখ রাসেল কুইজ খ গ্রুপ খেলুন এখানে

Online Contest:
Group A :: 8-12 years
12 October 2022, any 10 minutes between 6pm and 7pm.
Group B :: 13-18 years
13 October 2022, any 10 minutes between 6pm and 7pm.

Sheikh Russel Online Quiz  Rewards

Group A: 8-12 years
5 laptops (Core i7, 10th generation)
Group B :: 13-18 years
5 laptops (Core i7, 10th generation)

The quiz competition is open to 6 to 18-year-olds only.
A contestant can participate only once.
Participation with incorrect/false information will result in disqualification from the competition.

Sheikh Rasel Quiz

Sheikh Russel Online Quiz Rules

  • The allotted time for participation in the competition is 10 minutes.
  • All questions are of equal value. No number can be deducted for the wrong answer.
  • To answer all the questions one has to choose the correct answer from the four options (MCQ).
  • The winner will be selected from the maximum number of respondents in a short time.
  • Prizes will be awarded subject to age verification in case of final winners.

Sheikh Russel Quiz Topic

Questions will be asked on various topics including Sheikh Russell’s birth, early childhood, educational life, dreams, travel, choice, sports, books written on him, moments spent with Father of the Nation Bangabandhu Sheikh Mujibur Rahman and his family members.

শেখ রাসেল কুইজ
গ্রুপ খ রেজিস্ট্রেশন (১৩-১৮ বছর)

শেখ রাসেল কুইজ
গ্রুপ ক রেজিস্ট্রেশন (৮-১২ বছর)

শেখ রাসেল কুইজ প্রশ্ন ও উত্তর

১। শেখ রাসেল কে?

উত্তরঃ শেখ রাসেল বাংলাদেশের রাজনৈতিক নেতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের সর্বকনিষ্ঠ পুত্র।

২। শেখ রাসেল কত সালে জন্মগ্রহণ করেন?

উত্তরঃ শেখ রাসেল ১৮ অক্টোবর ১৯৬৪ সালে জন্মগ্রহণ করেন।

৩। শেখ রাসেল কোথায় জন্মগ্রহণ করেন?

উত্তরঃ শেখ রাসেল ঐতিহাসিক বঙ্গবন্ধু ভবন যা পূর্ব পাকিস্তানের ঢাকা অঞ্চলের ধানমন্ডিতে ৩২ নম্বর ভবনে ১৮ অক্টোবর ১৯৬৪ সালে জন্মগ্রহণ করেন।

৪। শেখ রাসেলের জন্ম তারিখ কত?

উত্তরঃ ১৮ অক্টোবর।

৫। শেখ রাসেলের বাবার নাম কি?

উত্তরঃ বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান।

৬। শেখ রাসেলের মাতার নাম কি?

উত্তরঃ শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব।

৭। শেখ রাসেলের ভাই-বােন কত জন?

উত্তরঃ পাঁচ ভাই-বােন।

৮। পাঁচ ভাই-বােনের মধ্যে রাসেলের অবস্থান কততম?

উত্তরঃ পাঁচ ভাই-বােনের মধ্যে রাসেল সর্বকনিষ্ঠ।

৯। শেখ রাসেলের ভাইদের নাম কি?

উত্তরঃ শেখ কামাল, শেখ জামাল

১০। শেখ রাসেলের বােনদের নাম কি?

উত্তরঃ শেখ হাসিনা, শেখ রেহানা।

১১। শেখ রাসেল কোন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে পড়তেন?

উত্তরঃ শেখ রাসেল ইউনিভার্সিটি ল্যাবরেটরি স্কুল ও কলেজের চতুর্থ শ্রেণিতে পড়তেন।

১৩। শেখ রাসেলকে কত সালে হত্যা করা হয়?

উত্তরঃ ১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্ট প্রত্যুষে ।

১৪। শেখ রাসেলকে কত তারিখে হত্যা করা হয়?

উত্তরঃ ১৫ আগস্ট।

১৩। শেখ রাসেলকে কত সালে হত্যা করা হয়?

উত্তরঃ ১৯৭৫ সালে।

১৫। শেখ রাসেলের মাতৃশিক্ষায়তনের নাম কি?

উত্তরঃ ইউনিভার্সিটি ল্যাবরেটরি স্কুল ও কলেজ।

১৬। শেখ রাসেলকে যখন হত্যা করা হয়, তখন তার বয়স কত ছিল?

উত্তরঃ ১০ বছর।

১৭। শেখ রাসেলের পরিচিতির কারণ কি?

উত্তরঃ জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের সর্বকনিষ্ঠ পুত্র।

১৮। শেখ রাসেল তার বােন শেখ হাসিনাকে কি নামে ডাকতাে?

উত্তরঃ হাসু আপা।

১৯। ভাইয়া আমাকে মারবে না তাে? এ কথাটি শেখ রাসেল কাকে উদ্দেশ্য করে বলে?

উত্তরঃ ব্যক্তিগত কর্মচারী এ এফ এম মহিতুল ইসলামকে উদ্দেশ্য করে বলে।

২০। শেখ রাসেলের আদি নিবাস কোথায়?

উত্তরঃ গােপালগঞ্জ।

২১। শেখ রাসেল জাতীয় শিশু-কিশাের পরিষদ কেন প্রতিষ্ঠা করা হয়?

উত্তরঃ এই সামাজিক, সাংস্কৃতিক ও ক্রীড়া সংগঠনের মাধ্যমে শিশু শেখ রাসেলের স্মৃতি, মুক্তিযুদ্ধের চেতনা ও বঙ্গবন্ধুর আদর্শ ধারণ করে এই দেশকে এগিয়ে নিয়ে যেতে পারে।

২২। শেখ রাসেল জাতীয় শিশু-কিশাের পরিষদ কে প্রতিষ্ঠা করেন?

উত্তরঃ শেখ হাসিনা।

২৩। শেখ রাসেল জাতীয় শিশু-কিশাের পরিষদ কত সালে প্রতিষ্ঠিত হয়?

উত্তরঃ ১৯৮৯ সালের ২০শে ফেব্রুয়ারি।

২৪। শেখ রাসেল জাতীয় শিশু-কিশাের পরিষদের লক্ষ্য কি?

উত্তরঃ শেখ হাসিনা শেখ রাসেল জাতীয় শিশু-কিশাের পরিষদ এই সংগঠনটি প্রতিষ্ঠা করেন যাতে করে এই সামাজিক, সাংস্কৃতিক ও ক্রীড়া সংগঠনের মাধ্যমে শিশু শেখ রাসেলের স্মৃতি, মুক্তিযুদ্ধের চেতনা ও বঙ্গবন্ধুর আদর্শ ধারণ করে এই দেশকে এগিয়ে নিয়ে যেতে পারে, সেই লক্ষ্যে এই সংগঠন প্রতিষ্ঠিত।

২৫। শেখ রাসেল ক্রীড়াচক্র কেন প্রতিষ্ঠা করা হয়?

উত্তরঃ শেখ রাসেলের স্মৃতিকে জাগরূক রাখার জন্য শেখ রাসেল ক্রীড়াচক্র প্রতিষ্ঠা করা হয়।

২৬। “আমি মায়ের কাছে যাব” কে,কখন এ উক্তিটি করেছিল?

উত্তরঃ বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবের নির্দেশে রাসেলকে নিয়ে পালানাের সময় ব্যক্তিগত কর্মচারীসহ রাসেলকে অভ্যুত্থানকারীরা আটক করে। আতঙ্কিত হয়ে শিশু রাসেল কান্নাজড়িত কণ্ঠে বলেছিলেন, “আমি মায়ের কাছে যাব”।

২৭। শেখ রাসেল নামটি কে রেখেছিলেন?

উত্তরঃ জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান।

২৯। শেখ রাসেল নামকরণে কার গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা ছিল?

উত্তরঃ মা বেগম ফজিলাতুন নেছা মুজিবের গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা ছিল।

৩০। শেখ রাসেলের ভুবন ছিল কারা?

উত্তরঃ শেখ রাসেলের ভুবন ছিল তাঁর পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ও মাতা শেখ ফজিলাতুননেসা মুজিব, বােন শেখ হাসিনা ও শেখ রেহানা এবং ভাই শেখ কামাল ও শেখ জামালকে ঘিরে।

৩১। শৈশব থেকে শেখ রাসেল কেমন ছিলেন?

উত্তরঃ শৈশব থেকেই দুরন্ত প্রাণবন্ত রাসেল ছিলেন পরিবারের সবার অতি আদরের।

৩২। কত বছর বয়স থেকে প্রিয় পিতার সঙ্গে তাঁর সাক্ষাতের একমাত্র স্থান হয়ে ওঠে ঢাকা কেন্দ্রীয় কারাগার ও ঢাকা ক্যান্টনমেন্ট?
উত্তরঃ মাত্র দেড় বছর বয়স থেকে প্রিয় পিতার সঙ্গে তাঁর সাক্ষাতের একমাত্র স্থান হয়ে ওঠে ঢাকা কেন্দ্রীয় কারাগার ও ঢাকা ক্যান্টনমেন্ট।

৩৪। রাসেলের জন্মের আগের মুহূর্তগুলাে কেমন ছিল?

উত্তরঃ ভীষণ উৎকণ্ঠার।

৩৫। শেখ রাসেল জন্মের সময় কেমন ছিলেন?
উত্তরঃ মাথাভরা ঘন কালাে চুল, তুলতুলে নরম গাল, বেশ বড়সড় হয়েছিল শেখ রাসেল।

৩৬। ১৯৭১ সালে শেখ রাসেলের পরিবারের সদস্যরা কিভাবে কাটিয়েছেন?

উত্তরঃ ১৯৭১ সালে রাসেল তাঁর মা ও দুই আপাসহ পরিবারের সদস্যদের সঙ্গে ধানমণ্ডি ১৮ নম্বর সড়কের একটি বাড়িতে বন্দি জীবন কাটিয়েছেন। পিতা বঙ্গবন্ধু | তখন পাকিস্তানের কারাগারে বন্দি এবং বড় দুই ভাই শেখ কামাল ও শেখ জামাল চলে গেছেন মুক্তিযুদ্ধে। মা ও আপাসহ পরিবারের সদস্যরা ১৯৭১ সালের ১৭ই ডিসেম্বর মুক্ত হন। রাসেল ‘জয় বাংলা’ বলে ঘর থেকে বেরিয়ে আসেন। বাইরে তখন চলছে বিজয়-উৎসব।

৩৭। কত বছর বয়সে ১৯৭১ সালে শেখ রাসেল নিজেই বন্দি হয়ে যান?
উত্তরঃ .৭ বছর বয়সে।

৩৮। শেখ রাসেল অভিমান করে কাকে ‘আব্বা ‘আব্বা বলে ডাকে?
উত্তরঃ রাসেল তার মাকে ‘আব্বা আব্বা’ বলে ডাকতো।

৯। শেখ রাসেল করে মাকে কেন ‘আব্বা’ ‘আব্বা বলে ডাকে?
উত্তরঃ কারগারের রােজনামচায় ১৯৬৭ সালের ১৪-১৫ এপ্রিলের অন্যান্য প্রসঙ্গ ছাড়াও রাসেলকে নিয়ে বঙ্গবন্ধু লিখেছেন, “জেল গেটে যখন উপস্থিত হলাম ছােট ছেলেটা আজ আর বাইরে এসে দাঁড়াইয়া নাই দেখে আশ্চর্যই হলাম।

আমি যখন রুমের ভিতর যেয়ে ওকে কোলে করলাম আমার গলা ধরে ‘আব্বা’ ‘আব্বা করে কয়েকবার ডাক দিয়ে ওর মার কোলে যেয়ে ‘আব্বা’ ‘আব্বা করে ডাকতে শুরু করল। ওর মাকে ‘আব্বা বলে।

আমি জিজ্ঞাসা করলাম, ব্যাপার কি? ওর মা বলল,“বাড়িতে ‘আব্বা’ ‘আব্বা করে কাঁদে তাই ওকে বলেছি আমাকে ‘আব্বা বলে ডাকতে।

রাসেল ‘আব্বা’ ‘আব্বা বলে ডাকতে লাগল। যেই আমি জবাব দেই সেই ওর মার গলা ধরে বলে, “তুমি আমার আব্বা।”আমার উপর অভিমান করেছে বলে মনে হয়।

৪০। শেখ রাসেলের জন্ম কয়টায়?
উত্তরঃ শেখ রাসেলের জন্ম রাত দেড়টায়।

৪২। ঢাকা ইউনিভার্সিটি ল্যাবরেটরি স্কুলে শেখ রাসেলের শিক্ষাজীবন শুরু হয় কত বছর বয়সে?
উত্তরঃ ৪ বছর বয়সে।

৪৩। ৪ বছর বয়সে শেখ রাসেলের শিক্ষাজীবন শুরু হয় কোথায়?
উত্তরঃ ঢাকা ইউনিভার্সিটি ল্যাবরেটরি স্কুলে।

৪৪। মৃত্যুকালে শেখ রাসেল ইউনিভার্সিটি ল্যাবরেটরি স্কুলের কোন শ্রেণীর ছাত্র ছিল?
উত্তরঃ মৃত্যুকালে শেখ রাসেল ইউনিভার্সিটি ল্যাবরেটরি স্কুলের চতুর্থ শ্রেণীর ছাত্র ছিল।

৪৫। মৃত্যুকালে শেখ রাসেল কোন স্কুলের ছাত্র ছিল?
উত্তরঃ মৃত্যুকালে শেখ রাসেল ইউনিভার্সিটি ল্যাবরেটরি স্কুলের ছাত্র ছিল।

৪৬। শেখ রাসেলের যেদিন জন্ম হয় বঙ্গবন্ধু সেদিন কোথায় অবস্থান করছিলেন?
উত্তরঃ রাসেলের যেদিন জন্ম হয় বঙ্গবন্ধু সেদিন ফাতেমা জিন্নাহর পক্ষে প্রচারণায় অংশগ্রহণের জন্য চট্টগ্রামে অবস্থান করছিলেন।

৪৭। আমাদের ছােট রাসেল সােনা’ বইটি কে লিখেছে?
উত্তরঃ শেখ হাসিনা।

৪৮। শেখ রাসেলের দুরন্তপনার সঙ্গী কি ছিল?
উত্তরঃ শেখ রাসেলের দুরন্তপনার সঙ্গী ছিল বাই-সাইকেল।

৫০। আমাদের ছােট রাসেল সােনা বইটি কোথা থেকে প্রকাশিত হয়েছে?
উত্তরঃ আমাদের ছােট রাসেল সােনা বইটি বাংলাদেশ শিশু একাডেমি থেকে প্রকাশিত হয়েছে।

৫২। শেখ রাসেলের শিক্ষিকার নাম কি?
উত্তরঃ গীতালি দাস গুপ্তা।

৫৩। শিক্ষিকা গীতালি দাশগুপ্তার কাছে শেখ রাসেল কেমন ছিলেন?
উত্তরঃ মেধা ও মননের অপূর্ব সমাহার ছিল শিশু রাসেলের কচি মনে। তার শিশু মন ছিল মানবিকতায় ভরা। তার মনে হাজারাে প্রশ্ন থাকত, সব প্রশ্নের উত্তর জানতে চাইত।

৫৪। শেখ হাসিনা আমাদের ছােট রাসেল সােনা বইয়ের ২১ পৃষ্ঠায় লিখেছেন, কারাগারে বঙ্গবন্ধুর সঙ্গে সাক্ষাৎ করতে কত দিন পরপর যেতেন?
উত্তরঃ ১৫ দিন পরপর।

৫৫। শেখ রাসেলকে কখন হত্যা করা হয়?
উত্তরঃ শেখ রাসেলকে মা, বাবা, দুই ভাই, ভাইয়ের স্ত্রী, চাচার লাশের পাশ দিয়ে হাঁটিয়ে নিয়ে সবার পর সবশেষে নিষ্ঠুরভাবে হত্যা করা হয়।

৫৬। রাসেলকে নিয়ে কারাগারের রােজনামচা’র ২৭ শে মে এবং ২৮ শে মে ১৯৬৭ সালের স্মৃতিচারণায় বঙ্গবন্ধু কি লিখেছেন?

উত্তরঃ রাসেলকে নিয়ে কারাগারের রােজনামচা’র ২৭ শে মে এবং ২৮ শে মে ১৯৬৭ সালের স্মৃতিচারণায় বঙ্গবন্ধু লিখেছেন, রাসেল আমাকে পড়ে শােনাল, আড়াই বৎসরের ছেলে আমাকে বলছে ৬ দফা মানতে হবে- সংগ্রাম, সংগ্রাম চলবে চলবেপাকিস্তান জিন্দাবাদ’ ভাঙা ভাঙা করে বলে কি মিষ্টি শােনায়!

জিজ্ঞাসা করলাম, ও শিখল কোথা থেকে? রেণু বলল, বাসায় সভা হয়েছে তখন কর্মীরা বলেছিল, তাই শিখেছে।

৫৭। শেখ রাসেল প্রথম কারাগার দেখে কত সালে?
উত্তরঃ শেখ রাসেল প্রথম কারাগার দেখে ১৯৬৬ সালের ৮ মে, পিতার গ্রেপ্তারের পর।

৫৮। শেখ রাসেল দিবস কবে?
উত্তরঃ ১৮ অক্টোবর।

৫৯। শেখ রাসেল দিবস কোন শ্রেণিভুক্ত দিবস?
উত্তরঃ শেখ রাসেল দিবস ‘ক’শ্রেণিভুক্ত দিবস।

৬০। মন্ত্রিসভার বৈঠকে শেখ রাসেল দিবস ‘ক’শ্রেণিভুক্ত দিবস হিসেবে পালনের বিষয়ে কত তারিখে অনুমােদন দেওয়া হয়?
উত্তরঃ ২৩ আগস্ট ২০২১ মন্ত্রিসভার বৈঠকে শেখ রাসেল দিবস ‘ক’শ্রেণিভুক্ত দিবস হিসেবে পালনের বিষয়ে অনুমােদন দেওয়া হয়।

৬১। সরকারি উদ্যেগে প্রথমবারের মত শেখ রাসেল দিবস উদ্যাপন করা হয় কবে?
উত্তরঃ ১৮ অক্টোবর ২০২১, সরকারি উদ্যেগে প্রথমবারের মত শেখ রাসেল দিবস’ উদ্যাপন করা হয়।

৬৩। শেখ রাসেল গ্রামে বেড়াতে যেয়ে কিকি করতেন?

উত্তরঃ ছােট ছােট গরিব শিশুর প্রতি তার দরদ ছিল, যখন সে গ্রামে যেতাে, গ্রামের অনেক শিশুকে সে জোগাড় করতাে। সে কাঠের বন্দুক বানাতাে। শিশুদের জন্য মাকে বলতাে কাপড় কিনে দিতে হবে। মা ঠিকই কিনে দিতেন। বাচ্চাদের সে প্যারেড করাতাে।

৬৪। ১৯৭২ সালের জুলাই মাসে বঙ্গবন্ধু চিকিৎসার জন্য লন্ডন গেলে রাসেল কি কিনতে বায়না ধরে?

উত্তরেঃ ১৯৭২ সালের জুলাই মাসে বঙ্গবন্ধু চিকিৎসার জন্য লন্ডন যান। সেখানে অস্ত্রোপচারের সময় পরিবারের অন্য সদস্যরাও উপস্থিত ছিল। বঙ্গবন্ধু সুস্থ হলে শেখ হাসিনা ও শেখ রেহানা বাজারে আসা নতুন সিনথেটিক শাড়ি কিনলে রাসেল বায়না ধরে তার শিক্ষকের জন্যও একটা কিনতে হবে।

৬৫। শেখ রেহানাকে কি বলে ডাকতেন শেখ রাসেল।
উত্তরঃ শেখ রেহানাকে “দেনা আপু” বলে ডাকতেন শেখ রাসেল।

৬৬। শেখ রাসেলকে কত নম্বর বাড়িতে নির্মমভাবে হত্যা করা হয়?
উত্তরঃ ১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্ট কালরাতে ধানমন্ডি ৩২ নম্বর রােডের ৬৭৭ নম্বর বাড়িতে, বাবা-মা ও পরিবারের সদস্যদের সঙ্গে তাকে নির্মমভাবে হত্যা করা হয়।

৬৭। শেখ রাসেলের বড় ভাই এর নাম কি?
উত্তরঃ ১৯৭১ সালের স্বাধীনতা যুদ্ধে মুক্তিবাহিনীর অন্যতম সংগঠক শেখ কামাল।

৬৮। শেখ রাসেলের ছােটো ভাই এর নাম কি?
উত্তরঃ বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর কর্মকর্তা শেখ জামাল।

৬৯। শেখ রাসেলের বড় বােনের নাম কি?
উত্তরঃ বাংলাদেশের বর্তমান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

৭০। শেখ রাসেলের ছােটো বােনের নাম কি?
উত্তরঃ বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের রাজনীতিবিদ শেখ রেহানা।

৭১। গীতাঞ্জলি বড়ুয়া কে?
উত্তরঃ বঙ্গবন্ধুর কনিষ্ঠ পুত্র শেখ রাসেলের সহপাঠী ও বদরুন্নেসা সরকারি কলেজের ইংরেজি বিভাগের অধ্যাপক গীতাঞ্জলি বড়ুয়া। শেখ রাসেলের সহপাঠী হিসেবে তার যাত্রা শুরু হয় ১৯৭২ সালে। রাসেলের সঙ্গে পড়েছে প্রথম শ্রেণি থেকে চতুর্থ শ্রেণি পর্যন্ত। রাসেল ছিল সহজ, সরল, স্বাস্থ্য ভালাে, ছিমছাম, প্রাণবন্ত, হাসি-খুশি, বন্ধুসুলভ, উদ্যমী ও দুরন্ত এক শিশু।

৭২। কালাে বড় পিঁপড়া দেখলে শেখ রাসেল কি বলত?
উত্তরঃ ভুট্টো!

৭৩। শেখ রাসেলের খেলার সাথী কে?
উত্তরঃ শেখ রাসেলের খেলার সাথী হিসেবে কবুতরের পেছনে ছােটা আর নিজে হাতে করে খাবার দেওয়া অভ্যাসে পরিণত হয়। তাকে কখনাে কবুতরের মাংস খাওয়াতে পারেননি কেউ। যেন পােষা পাখির প্রতি বাল্যকাল থেকে তার অন্তরে মমতা জেগে উঠেছিল।

৭৪। টমি কে?
উত্তরঃ চার বছর বয়সেই সে বাড়ির পােষা কুকুর টমির সঙ্গে বন্ধুত্ব গড়ে নিয়েছিল। টমিকে সে খুবই ভালােবাসতাে। হাতে করে খাবার দিত। নিজের পছন্দমতাে খাবারগুলাে টমিকে ভাগ দেওয়া ছিল একটি কাজ।

৭৫। শেখ রাসেলের স্বল্পায়ু জীবন কত?
উত্তরঃ মাত্র ১০ বছর ৯ মাস ২৭ দিনের স্বল্পায়ু জীবন ছিল।

৭৬। শেখ রাসেল বাড়ির কাজের ছেলে আব্দুল মিয়াকে কি বলে ডাকতাে?
উত্তরঃ শেখ রাসেল বাড়ির কাজের ছেলে আব্দুল মিয়াকে ‘ভাই’ বলে ডাকতাে।

৭৭। শেখ রাসেলের কি শখ ছিল?
উত্তরঃ রাসেলের মাছ ধরার খুব শখ ছিল। তবে মাছ ধরার পর আবার তা ছেড়ে উত্তরঃ শেখ রাসেল বাড়ির কাজের ছেলে আব্দুল মিয়াকে ‘ভাই’ বলে ডাকতাে।

৭৭। শেখ রাসেলের কি শখ ছিল?
উত্তরঃ রাসেলের মাছ ধরার খুব শখ ছিল। তবে মাছ ধরার পর আবার তা ছেড়ে দিতেই সে বেশি মজা পেত। এটাই ছিল তার মাছ ধরার খেলা।

৭৮। কত বছর বয়স, যখন শেখ রাসেলের ভাগ্নে সজীব ওয়াজেদ জয়ের জন্ম হয়?
উত্তরঃ মাত্র ৭ বছর বয়স, যখন শেখ রাসেলের ভাগ্নে সজীব ওয়াজেদ জয়ের জন্ম হয়।

৭৯। টিটো কে?
উত্তরঃ বাসার পাকিস্তানি সৈনিকদের ভারতীয় মিত্রবাহিনী বন্দি করার পর পরই রাসেল আর তার খেলার সাথী টিটো দুজনেই তাদের মাথায় হেলমেট পরে যুদ্ধের সাজে যুদ্ধ যুদ্ধ খেলা শুরু করে। বিজয়ের উল্লাসে উদ্বেলিত শিশু রাসেল।

৮০। ১৫ আগস্ট সমাবর্তন উপলক্ষ্যে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে বঙ্গবন্ধুকে স্যালুট জানানাের জন্য বাছাই করা হয়েছিল কাকে?
উত্তরঃ ১৫ আগস্ট সমাবর্তন উপলক্ষ্যে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে বঙ্গবন্ধুকে স্যালুট জানানাের জন্য বাছাই করা হয়েছিল ইউনিভার্সিটি ল্যাবরেটরি স্কুলের ৬ জন সদস্যকে। তাদের মধ্যে অন্যতম চতুর্থ শ্রেণির ছাত্র শেখ রাসেল।

৮১। ৮ ফেব্রুয়ারি ২ বছরের ছেলেটা এসে বলে, আব্বা বাড়ি চলাে। কী উত্তর ওকে আমি দিব। ওকে ভােলাতে চেষ্টা করলাম, ও তাে বােঝে না আমি কারাবন্দি। ওকে বললাম, তােমার মার বাড়ি তুমি যাও। আমি আমার বাড়ি থাকি। আবার আমাকে দেখতে এসাে। ও কি বুঝতে চায়! কি করে নিয়ে যাবে এই ছােট্ট ছেলেটা, ওর দুর্বল হাত দিয়ে মুক্ত করে এই পাষাণ প্রাচীর থেকে! – এ উক্তিটি কে, কি উদ্দেশ্যে করেছিল?

উত্তরঃ কারাগারের রােজনামচা’তে শেখ রাসেলকে নিয়ে বঙ্গবন্ধু লিখেছেন।

.৮২। তুইতাে গল্পের বই, খেলনা নিয়ে সবচেয়ে পরিচ্ছন্ন বয়সেতে ছিলি! তবুও পৃথিবী আজ এমন পিশাচি হলাে শিশুরক্তপানে তার গ্লানি নেই? সর্বনাশী, আমার ধিক্কার নে! যত নামহীন শিশু যেখানেই ঝরে যায় আমি ক্ষমা চাই, আমি সভ্যতার নামে ক্ষমা চাই।…কবিতার লাইনগুলি কার?

উত্তরঃ দুই বাংলার বিখ্যাত কবি সুনীল গঙ্গোপাধ্যায়ের শিশুরক্ত’ কবিতার লাইন।

৮৩। ১৯৭২ সালে জাপানী চলচ্চিত্রকার Nagisa Oshima নির্মিত ‘Rahman, Father of Bengal স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্রে জাপানি সাংবাদিক জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের সাক্ষাৎকার গ্রহণের সময় প্রশ্ন করেছিলেন, ‘লক্ষ করছি একটি ছােট্ট ছেলে সবসময় আপনার চারপাশে ঘুরঘুর করে। ছেলেটি কে? কেন সবসময় আপনার চারপাশে থাকে?’… উত্তরে বঙ্গবন্ধু কি বলেছিলেন?

উত্তরঃ উত্তরে বঙ্গবন্ধু বলেছিলেন-,‘ছেলেটির বাবা সবসময়ই কারাগারে থাকতাে। ফলে সে তার বাবার স্নেহ থেকে বঞ্চিত হয়েছে। আমি তার বাবা, তাই সবসময় তাকে কাছে রাখি।

Leave a Comment

Your email address will not be published.